1. site@64bangla.tv : admin64bangla : হেড অব নিউজ
  2. ownreporter1@64bangla.tv : নিজস্ব প্রতিবেদক : নিজস্ব প্রতিবেদক
কেরাণীগঞ্জে মিথ্যা অভিযোগে হয়রানির প্রতিবাদে প্রবাসির সংবাদ সম্মেলন - ৬৪ বাংলা টিভি
রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:১৪ অপরাহ্ন
সর্বশেষ:
ডিএনসি নওগাঁ, গাইবান্ধা, খুলনা ও নোয়াখালীতে বিপুল পরিমান মাদক উদ্ধার ‍। বুধবার সকালে উপকূল অতিক্রম করবে ঘূর্ণিঝড় ‘হামুন’ পুলিশ মোতায়েন রাখতে চায় ইসি ভোটের ১৫ দিন পরেও পরিচালক-প্রযোজক শফি বিক্রমপুরী আজ মারা গেছেন ফিলিস্তিন, জর্ডান এবং মিশরের সঙ্গে বৈঠক বাতিল বাইডেনের বিএনপির গণসমাবেশকে কেন্দ্র করে বিএনপির ২০ নেতাকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ বিশ্বকাপ বাছাইয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডে ওঠার নজীর গড়ল বাংলাদেশ ফুটবল দল ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে পর্যাপ্ত ব্যবস্থাপনা গ্রহন করা হচ্ছে না: স্বাস্থ্যমন্ত্রী আজ ফাইনালের মধ্য দিয়ে শেষ হচ্ছে সেলিব্রেটি ক্রিকেট লিগের কোনো ভয় নেই সরকার পাশে আছে দুর্গোৎসবে কামরুল ইসলাম

কেরাণীগঞ্জে মিথ্যা অভিযোগে হয়রানির প্রতিবাদে প্রবাসির সংবাদ সম্মেলন

মো.মাসুম
  • আপডেট সময়ঃ শুক্রবার, ২ অক্টোবর, ২০২০
  • ৫৪৮ বার পড়া হয়েছে
64bangla tv
64bangla tv
ঢাকার দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জে গোয়ালখালী এলাকায় মিথ্যা অভিযোগে হয়রানির প্রতিবাদে সাংবাদ সম্মেলন করেছে পলাশ সরকার নামে এক আফ্রিকান প্রবাসি। আজ অক্টোবর ২০ইং শুক্রবার সকালে গোয়ালখালীর তার নিজ বাসায় সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, আমি দীর্ঘদিন যাবত দক্ষিণ আফ্রিকার প্রবাস জীবন শেষে বিগত ২২শে জানুয়ারী ২০১৯ তারিখে আমার পৈত্রিক বাড়ীতে ফিরে আসি। এরপর থেকে শান্তিপূর্ণ ভাবেই জীবন যাপন করে আসছিলাম। কিন্তু আমার পরিবারের সাথে পূর্ব শত্রুতার জেড় ধরে খোলামোড়া নির্বাসি আইন মন্ত্রনালয়ের প্রটোকল অফিসার পরিচয় দানকারী শ্রী নীল রতন মন্টু তার শক্রতা হাসিলের লক্ষ্যে আমার চাচা রামহরি ও রাজহরি সরকারকে ব্যবহার করে আমার বিরুদ্ধে গত ৩০শে সেপ্টেম্বর কেরাণীগঞ্জ প্রেসক্লাবে একটি সংবাদ সন্মেলন করেন। যাহা সম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোয়াট ও উদ্দেশ্য প্রনোদিত। মূলত আমাকে সামাজিক মানষিক ও অর্থনৈতিক ভাবে হয়রানির উদ্দেশ্যে সে এ ধরনের সংবাদ সম্মেলন করেছে। উক্ত সংবাদ সম্মেলনে রাজহরি সরকার বলেছেন আমার অত্যাচারে সে ৬ বছর যাবত বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে, যাহা সম্পূন্য মিথ্যা ও বানোয়াট। মূলত আমি এতদিন দেশেই ছিলাম না। আমি বাড়িতে আসছি মাত্র এক থেকে দেড় মাস আগে। তাহলে তাকে কি ভাবে আমি হয়রানি করলাম ? আইন মন্ত্রনালয়ের প্রটোকল অফিসার পরিচয় দানকারি নীল রতন মন্টুর প্ররোচনায় আমার চাচা রামহরি ও রাজহরি আমাকে একাধিক মিথ্যা মামলায় দীর্ঘদিন যাবত হয়রানি করে আসছে। সর্বশেষ গত ফেব্রæয়ারী মাসে আমার বিরুদ্ধে নানান মিথ্যা অভিযোগ এনে একটি হয়রানী মূলক মামলা দেয়। যে মামলায় আমি ২৮ দিন জেল আজাত শেষে বর্তমানে জামিনে আছি । আমাদের পারিবারিক সম্পত্তির ভাগ বাটোয়ারা নিয়ে এক বিচার শালিসের আয়োজন করলে আমার চাচা উক্ত আইন মন্ত্রনালয়ের প্রটোকল অফিসার পরিচয় দানকারি নীল রতন মন্টুর কাছে যায়। আমার চাচার হাত ধরে সে উক্ত শালিসে আসে। তখন সে আমাকে বিচারে জিতিয়ে দেওয়ার জন্য আমার কাছে পাঁচ লাখ টাকা দাবী করেন। আমি তার দাবীকৃত টাকা না দেওয়ায় সে আমার উপর ক্ষিপ্ত হয়ে একের পর এক মিথ্যা প্ররোচনা আমাকে ফাসানোর চেষ্টা করে এবং সে আমাকে এটাও বলে যে এই বাড়িতে তুই কিভাবে ঘর তৈরী করিস সেটা আমি দেখে নেব। আফ্রিকান প্রবাসি আরো বলেন আমাদের উক্ত পারিবারিক বিষয়টি স্থাণীয় ভাবে গ্রাম্য আদালতের মাধ্যমে মিমাংসা হয়। যাহা ৩০০ টাকার স্টাম্পে লিপিবন্ধ আছে। তবুও প্রতিপক্ষ আমার চাচা রাজহরি ও রামহরি উক্ত আইন মন্ত্রনালয়ের প্রটোকল অফিসার পরিচয় দানকারি নীল রতন মন্টুর প্ররোচনায় মিমাংসিত বিষয়টিকে নিয়ে আমাকে বার বার হয়রানি করে আসছে। আজ এই সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আপনাদের সঠিক লেখনি দ্বারা এ ধরনের হয়রানি থেকে আমি ও আমার পরিবার রেহাই পেতে চাই। ভবিষ্যতে উক্ত চক্রটির দ্বারা আমার মত আর কেউ যেন হয়রানির শিকার না হয়। সে বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সু-দৃষ্টি কামনা করছি।

দয়া করে খবরটি সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© ৬৪বাংলা.টিভি, ২০২২ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Developed By Madina IT